টুর্নামেন্ট–সেরা কেন উইলিয়ামসন

Sharing is caring!

খেলায় নিউজিল্যান্ড হারেনি, কিন্তু চ্যাম্পিয়নও হতে পারল না! নিজের দল চ্যাম্পিয়ন না হলেও টুর্নামেন্ট সেরার পুরস্কারটা ঠিকই জিতে নিলেন কেন উইলিয়ামসন। এই দিন ব্যাট হাতে তিনি দেখান তাণ্ডব। তবে টুর্নামেন্ট সেরার ফর্ম থেকেও ভালো ছিল অলরাউন্ড সাকিব আল হাসানের ফর্ম।

একটা টুর্নামেন্টের সেরা হওয়ার জন্য যা যা করা দরকার সবই করেছেন সাকিব আল হাসান। এমনকি টুর্নামেন্ট সেরা হওয়ার জন্য যত প্যারামিটার প্রয়োজন, সবই ছিল সাকিবের মাঝে।

বিশ্বকাপের ফাইনাল মাঠে গড়ানোর আগেও সব জরিপ আর হিসেবে এগিয়ে ছিলেন সাকিব আল হাসান। তালিকায় ছিলেন রোহিত শর্মা, কেন উইলিয়ামসন ও মিচেল স্টার্ক। অবশেষে টুর্নামেন্ট সেরার পুরস্কারটা তুলে দেওয়া হলো কেন উইলিয়ামসনের হাতে।

উইলিয়ামসনের সবচেয়ে বড় যোগ্যতা হচ্ছে, তিনি দলকে প্রায় এককভাবেই ফাইনালে তুলে এনেছেন। দিয়েছেন তুখোড় নেতৃত্ব। যদিও, শেষ মুহূর্তের চাপের মধ্য থেকে তার সতীর্থরা ম্যাচটা বের করে আনতে পারেননি। তবুও, তার কৃতিত্বকে খাটো করেনি আইসিসি। টুর্নামেন্ট সেরার পুরস্কারটা তুলে দেন কিউই অধিনায়কের হাতে।

‘ইতিহাসের সেরা’ ফাইনাল ম্যাচটিতে দুর্ভাগ্যবশত ইংল্যান্ডের কাছে নিউজিল্যান্ড হারলেও পুরো বিশ্বকাপেই দলটির ব্যাটিং স্তম্ভ হয়ে ছিলেন উইলিয়ামসন। ১০ ম্যাচ ও ৯ ইনিংসে তার সংগ্রহ ৫৭৪ রান। এবারের আসরের শীর্ষ রান সংগ্রাহকদের তালিকায় আছেন চারে। তার ব্যাটিং গড় ৮২.৫৭, সাকিবের পর সবচেয়ে বেশি।

সাকিব ৬০৬ রান ও ১১ উইকেট নিয়ে ছিলেন সম্ভাব্য সেরা। রোহিত শর্মা ৫ সেঞ্চুরিতে ৬৪৮ রান নিয়ে এবারের আসরের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। অন্যদিকে ২৭ উইকেট নিয়ে এক আসরে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারের রেকর্ড গড়েছেন অজি ফাস্ট বোলার মিচেল স্টার্ক।

About banglarmukh official

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*